ডিসেম্বর ১০, ২০২২ ১২:৩৬ অপরাহ্ণ || ইউএসবাংলানিউজ২৪.কম

ইউএস বাংলানিউজ, নিউইয়র্ক

অগ্রসর পাঠকের বাংলা অনলাইন

৫৬-তে সুপারস্টার সালমান খান

বাবা ছিলেন স্বনামধন্য চিত্রনাট্যকার। তাই, তার সিনেমায় আসা স্বাভাবিক ঘটনা ছিল। কিন্তু বলিউডে এতোটা আধিপত্য বিস্তার করবেন, এতোটা জনপ্রিয় হবেন; সেটা হয়ত কেউই কল্পনা করতে পারেনি।

মুম্বাই সিনে ইন্ডাস্ট্রি তার নামে কাঁপে, তার সিনেমা মুক্তি পেলে বক্স অফিসে ওঠে ঘুর্ণিঝড়। গত তিন দশকে বলিউডের সবচেয়ে সফল তারকাদের একজন তিনি। সেই মহাতারকার নাম সালমান খান।

আজ ২৭ ডিসেম্বর তার জন্মদিন। ১৯৬৫ সালের এই দিনে ভারতের মধ্যপ্রদেশ রাজ্যের ইন্দোরে জন্মগ্রহণ করেন তিনি। তার বাবা খ্যাতিমান চিত্রনাট্যকার সেলিম খান। জন্মের পর বাবা নাম রাখেন আব্দুল রশিদ সেলিম সালমান খান। তবে ভারত ছাড়িয়ে বিশ্বব্যাপী তিনি ‘সালমান খান’ নামেই পরিচিত।

বলিউডে সালমানের অভিষেক হয় ১৯৮৮ সালে ‘বিবি হো তো অ্যায়সি’ সিনেমায় অভিনয়ের মাধ্যমে। এখানে অবশ্য ছোট একটি চরিত্রে দেখা গেছে তাকে। নায়ক হিসেবে সাল্লুকে প্রথম পাওয়া যায় ১৯৮৯ সালে সুরাজ বার্জাতিয়া পরিচালিত ‘ম্যায়নে পেয়ার কিয়া’ সিনেমায়। প্রথম সিনেমা দিয়েই বাজিমাৎ করেন তিনি। এটি সেই সময়কার সর্বোচ্চ আয়কারী সিনেমা হিসেবে রেকর্ড করে। সেই সঙ্গে সালমানের হাতে চলে আসে শ্রেষ্ঠ নবাগত অভিনেতা ক্যাটাগরিতে  ফিল্মফেয়ার পুরস্কার।

এরপর আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি সালমানকে। ‘সাজান’, ‘হাম আপকে হ্যায় কৌন’, ‘করণ অর্জুন’, ‘জড়ুয়া’, ‘হাম দিল দে চুকে সানাম’, ‘হাম সাথ সাথ হ্যায়’, ‘তেরে নাম’, ‘জান-এ-মান’, ‘পার্টনার’, ‘দাবাং’, ‘এক থা টাইগার’, ‘ওয়ান্টেড’, ‘রেডি’, ‘বডিগার্ড’, ‘কিক’, ‘বজরঙ্গি ভাইজান’, ‘প্রেম রতন ধন পায়ো’ ও ‘সুলতান’, ‘টাইগার জিন্দা হ্যায়’, ‘রেস থ্রি’, ‘ভারত’সহ বহু সুপারহিট সিনেমা উপহার দিয়েছেন।

বলিউডের হিট মেশিন বলা হয় সালমান খানকে। কেননা তার সিনেমা মুক্তি পাওয়া মানেই হিট। বক্স অফিসে এমন সব রেকর্ড তিনি গড়েছেন, যা আর কেউ ছুঁতে পারেনি। একটানা ১৫টি ১০০ কোটির বেশি আয় করা সিনেমা উপহার দিয়েছেন তিনি, যা বলিউডের ইতিহাসে বিরল। এছাড়া এছাড়া ৩০০ কোটির ক্লাবেও রয়েছে তার ৩টি সিনেমা। এটিও অনন্য অর্জন।

আরও একটি রেকর্ড সালমান একান্ত নিজের করে রেখেছেন। ১৯৯৪ সালে মুক্তি পায় তার ‘হাম আপকে হ্যায় কৌন’ সিনেমাটি। মুক্তির পর সিনেমাটির টিকিট বিক্রি হয়েছিল ৭ কোটি ৪০ লাখের বেশি। হিন্দি সিনেমার ইতিহাসে আর কোনো সিনেমার এতো বেশি টিকিট বিক্রি হয়নি।

কেবল সিনেমা জগত নয়, টিভি পর্দায়ও সালমানের জনপ্রিয়তা তুঙ্গে। ‘দশ কা দম’, ‘বিগ বস’-এর মতো তুমুল জনপ্রিয় অনুষ্ঠানগুলো তারই সঞ্চালিত। বছরের পর বছর ধরে এগুলো তিনি জনপ্রিয়তার সঙ্গে উপস্থাপনা করে আসছেন।

অতিথি চরিত্র, মূল চরিত্র, গান ইত্যাদি মিলিয়ে শতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন সালমান খান। এছাড়া বিভিন্ন বিজ্ঞাপন, শো করার মাধ্যমে অঢেল অর্থের মালিক হয়েছেন। তার মোট সম্পদের পরিমাণ ৩ হাজার কোটির বেশি।

দীর্ঘ ক্যারিয়ারে অনেক প্রেমে জড়ালেও ঘর বাঁধেননি তিনি কারো সঙ্গেই। ৫৬ বছর পেরিয়ে এখনো তিনি সিঙ্গেল। তাই তাকে বলা হয় বলিউডের ‘মোস্ট এলিজেবল’ ব্যাচেলর।

আরও পড়ুন

error: Content is protected !!