এপ্রিল ১১, ২০২১ ১০:৪১ পূর্বাহ্ণ || ইউএসবাংলানিউজ২৪.কম

ইউএস বাংলানিউজ করপোরেশন, নিউইয়র্ক

অগ্রসর পাঠকের বাংলা অনলাইন

বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙচুরের ঘটনায় আটক ৪

কুষ্টিয়া শহরের পাঁচ রাস্তার মোড়ে নির্মাণাধীন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য ভাঙচুরের ঘটনায় প্রথমদিকে দুইজনকে আটক করার গুঞ্জন উঠলেও পরে চারজনকে আটক করার কথা জানান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। একইসঙ্গে এ ঘটনায় উস্কানিদাতাদেরও ধরা হবে বলে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন তিনি।

৬ ডিসেম্বর, রোববার সচিবালয়ে সমসাময়িক বিষয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা বলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

গত শুক্রবার রাতের কোনো এক সময় কুষ্টিয়া পৌরসভার পাঁচ রাস্তার মোড়ে নির্মাণাধীন বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যের ডান হাত, পুরো মুখ ও বাম হাতের অংশবিশেষ ভেঙে ফেলা হয়। ঢাকার দোলাইড়পারে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য স্থাপনে হেফাজতে ইসলামের বিরোধিতার মধ্যেই এই ঘটনা ঘটে।

এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘কুষ্টিয়ায় যে ঘটনাটি ঘটেছে তা আপনারা জানেন, পৌরসভা চত্বরে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য স্থাপন করেছিল। এটা পৌরসভা কর্তৃপক্ষই করেছিল। হঠাৎ করে দেখা গেল গভীর রাতে এসে…দু’জনের ভিডিও ফুটেজ দেখা গেছে। তারা দু’জন হাতুরি দিয়ে ভেঙেছে। ভাস্কর্য ভাঙচুরের ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে চার মাদ্রাসাছাত্রকে আটক করা হয়েছে। তারা হলো- আবু বকর, নাহিদ, আল আমীন ও ইউসুফ। এরা সবাই কুষ্টিয়ার ইবনে মাসুদ মাদ্রাসার ছাত্র। এদের মধ্যে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভেঙেছে আবু বকর ও নাহিদ।’

‘তাদের যে বক্তব্য…ফেসবুকে আপনারা নিশ্চয়ই দেখেছেন। আমরাও বিভিন্ন সময়ে দেখেছি। একজনের নাম বারবার চলে আসছে। তারই বক্তৃতা কিংবা তারই নির্দেশে এই ঘটনাগুলো ঘটছে। আমরা অনুসন্ধানের পর তার সম্পর্কে বিস্তারিত জানাব। এখন পর্যন্ত তদন্ত চলছে, তাই আমি তার নামটি বলছি না’ যোগ করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, ‘এই যে উস্কানি দিচ্ছে ছোট ছোট ছেলেমেয়েদের মিথ্যা তথ্য দিয়ে বের করে নিয়ে আসছে। এটা নিশ্চয়ই কারো কাম্য নয়। আমরা অবশ্যই এটা দেখব।’

‘এসময় দায়িদের শাস্তি নিশ্চিত করার পাশাপাশি সারাদেশের সব ভাস্কর্যের নিরাপত্তা জোরদার করার নিশ্চয়তাও দেন’ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য স্থাপন করতে দেয়া হবে না বলে হেফাজতের নেতারা হুঁশিয়ার করে দিয়েছেন। বিষয়টি আপনারা কীভাবে দেখছেন? সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের উত্তরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের দল আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে সাধারণ সম্পাদক তিনি তার বক্তব্যে স্পষ্ট করেছেন। আমি ও আমরা যারা শান্তিরক্ষায় নিয়োজিত আছি, আমরা এইটুকু বলতে পারি- কোনো ধরনের অরাজকতা বাংলাদেশে করতে দেব না। অরাজকতা বলেন, ভাঙচুর বলেন, কোনো রকম অরাজক পরিস্থিতি সৃষ্টি করতে দেব না।’

উস্কানিদাতাদেরও ছাড় দেয়া হবে না এমন হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেন, ‘কেউ যদি মনে করেন, তারাই অনেক শক্তিশালী হয়ে গেছেন, তাহলে এটা তাদের ভুল ধারণা। তদন্ত চলছে, যাদের নাম আসবে এক এক করে সবাইকে গ্রেপ্তার করা হবে।’

এসময় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘ভাস্কর্য মানে পূজা নয়, ব্যক্তির অবদানকে স্মরণ করা।’

আরও পড়ুন

error: Content is protected !!