নভেম্বর ২৩, ২০২০ ৬:৩০ পূর্বাহ্ণ || ইউএসবাংলানিউজ২৪.কম

ইউএস বাংলানিউজ করপোরেশন, নিউইয়র্ক

অগ্রসর পাঠকের বাংলা অনলাইন

আমি মুসলিমদের প্রতি শ্রদ্ধাশীল: ম্যাক্রোঁ

মহানবী (সা.) এর কার্টুন নিয়ে মুসলিমরা যে মর্মাহত তা অনুধাবন করতে পেরেছেন বলে জানিয়েছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ। আল জাজিরাকে দেয়া একান্ত সাক্ষাৎকারে মুসলিমদেরকে শ্রদ্ধা করেন বলেও জানান তিনি।

এসময় কার্টুন প্রকাশে সরকারের কোনো হাত নেই এবং সরকার এর প্রদর্শন করতে চায়নি বলেও দাবি করে তিনি বলেন, আমি তাদের প্রকাশিত অনুভূতিগুলো বুঝতে পারি এবং তাদের শ্রদ্ধা করি। তবে আমার ভূমিকাটাও তাদের বুঝতে হবে। শান্তির প্রচারএবং অধিকার রক্ষা এই দুইটি জিনিস আমি চয়েছি। আমি সবসময় আমার দেশে কথা বলার, লেখার, চিন্তাভাবনা করার, স্বাধীনতাকে রক্ষা করব।

ম্যাক্রোঁ বলেন, কার্টুন প্রদর্শন করা ফ্রান্সের কোনো সরকারি প্রকল্প ছিলো না। এটি একটি বেসরকারি স্বাধীন ও স্বতন্ত্র সংবাদপত্রের কাজ। পত্রিকাগুলো সরকারের অনুগত নয়। কার্টুন এঁকে রাসূলের (সা.) অবমাননা করায় মুসলমানদের অনুভূতি কেমন হতে পারে, তা আমি বুঝতে পারি।

মহানবীর (সা.) কার্টুন আঁকাকে সমর্থন করেন না জানিয়ে ম্যাকরোঁ বলেন, তার সরকার এ কার্টুন আঁকাকে সমর্থন করবে না বলে জোর দিয়েছিলো। কিন্তু কথা বিকৃতভাবে উপস্থাপিত হওয়ায় মানুষ মনে করেছে, তিনি কার্টুনগুলো সমর্থন করেন।

ম্যাক্রোঁ বলেন, আজ বিশ্বে এমন কিছু লোক রয়েছে যারা ইসলামকে বিকৃত করে এবং দাবি করে যে, তারা ধর্ম রক্ষা করছে। এজন্য তারা হত্যা করে, জবাই করে। ইসলামের নামে কিছু চরমপন্থি আন্দোলন রয়েছে। আর এগুলো ইসলামের জন্যই সবচেয়ে বড় সমস্যা। এর কারণে সর্বপ্রথম ক্ষতিগ্রস্ত হয় মুসলিমরা। বিশ্বব্যাপী সন্ত্রাসবাদীর শিকার ৮০ ভাগই মুসলিম এবং এটি আমাদের সকলের জন্যই সমস্যা।

আল জাজিরার প্রবীণ রাজনৈতিক বিশ্লেষক মারওয়ান বিশারা বলেন, ম্যাক্রোঁ সাক্ষাৎকারে ফ্রান্সের সঙ্গে মুসলিম বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ যে বিভেদ ইস্যু তৈরি হয়েছে সে বিষয়ে স্পষ্ট করার চেষ্টা করেছেন।

বিশারা বলেন, আমি মনে করি ক্ষতি হয়ে গেছে। তবে এটি ক্রমবর্ধমান চালিয়ে যাওয়ার দরকার আছে কি না সে বিষয়ে আমি নিশ্চিত নই। কারণ, দিনের শেষে এখানে কোনো বিজয়ী নেই। কিন্তু ক্ষতি সবারই। বিশেষ করে ইউরোপের মুসলিমরা ক্ষতির মুখে পড়বে।

আরও পড়ুন

error: Content is protected !!