ফেব্রুয়ারি ২৯, ২০২৪ ১২:১৮ অপরাহ্ণ || ইউএসবাংলানিউজ২৪.কম

১৯তম সংসদ অধিবেশন শুরু হচ্ছে বিকেলে

১ min read

আজ (২৮ আগস্ট) বিকেল ৫টায় শুরু হচ্ছে একাদশ জাতীয় সংসদের ১৯তম অধিবেশন। রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ গত ১১ আগস্ট সংবিধানের ৭২ অনুচ্ছেদের (১) দফায় প্রদত্ত ক্ষমতাবলে এ অধিবেশন আহ্বান করেন। অধিবেশন চলবে আগামী ১ সেপ্টেম্বর (বৃহস্পতিবার) পর্যন্ত।

৯০ দিনের সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতার জন্য এ অধিবেশন আহ্বান করা হয়েছে। সংবিধান অনুযায়ী এক অধিবেশনের পরবর্তী ৬০ দিবসের মধ্যে পরবর্তী অধিবেশন বসতে হবে। ফলে আসন্ন অধিবেশন সংক্ষিপ্ত হওয়ার কথা রয়েছে।

সংশ্লিষ্টরা জানান, চলতি একাদশ সংসদের ডেপুটি স্পিকার ও গাইবান্ধা-৫ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট মো. ফজলে রাব্বী মিয়ার মৃত্যুতে আজ শুরু হতে যাওয়া অধিবেশনের প্রথম বৈঠকেই নতুন ডেপুটি স্পিকার নির্বাচনের সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতা রয়েছে।

সংবিধানের ৭৪ (১) অনুচ্ছেদে বলা হয়েছে, ‘স্পিকার ও ডেপুটি স্পিকার পদের যেকোনোটি শূন্য হলে সাতদিনের মধ্যে কিংবা ওই সময়ে সংসদ বৈঠকরত না থাকলে পরবর্তী প্রথম বৈঠকে তা পূর্ণ করতে সংসদ সদস্যদের মধ্য থেকে একজনকে নির্বাচিত করতে হবে।’

উল্লেখ্য, যুক্তরাষ্ট্রে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ২২ জুলাই মারা যান ফজলে রাব্বী মিয়া। তখন সংসদ বৈঠকরত ছিল না। তাই আজ শুরু হতে যাওয়া অধিবেশনের প্রথম বৈঠকেই ডেপুটি স্পিকার নির্বাচিত করা হবে।

সংসদ সচিবালয়ের কর্মকর্তারা আরও জানান, কার্যসূচি অনুযায়ী আজ বিকেলের বৈঠকের শুরুতে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী সভাপতিমণ্ডলী মনোনয়ন দেবেন। এরপর নতুন একজন ডেপুটি স্পিকার নির্বাচন করবে সংসদ। এক্ষেত্রে একজন নতুন ডেপুটি স্পিকারের নাম প্রস্তাব করবেন এবং আরেকজন তা সমর্থন করবেন। পরে স্পিকার প্রস্তাবটি ভোটে দেবেন। সাধারণত সংসদের চিফ হুইপ এ প্রস্তাব উত্থাপন করেন। সরকারি দলের কোনো হুইপ বা জ্যেষ্ঠ সংসদ সদস্য তা সমর্থন করেন।

নতুন ডেপুটি স্পিকার নির্বাচিত হওয়ার পর সন্ধ্যা ৭টায় তাকে শপথ পড়াবেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। সংসদ ভবনের সপ্তম তলায় রাষ্ট্রপতির চেম্বারে এই শপথ হবে বলে বঙ্গভবন ও সংসদ সচিবালয় থেকে জানানো হয়েছে। ডেপুটি স্পিকার নির্বাচনের পর শোক প্রস্তাব তুলবেন স্পিকার। রেওয়াজ অনুযায়ী প্রয়াত ডেপুটি স্পিকারের মৃত্যুতে আনা শোক প্রস্তাবের ওপর আলোচনা শেষে অধিবেশন মুলতবি ঘোষণা করা হবে।

এদিকে নতুন ডেপুটি স্পিকার কে হচ্ছেন, এ নিয়ে নানামুখী আলোচনা রয়েছে। এক্ষেত্রে সরকারদলীয় একাধিক সংসদ সদস্যের নাম শোনা যাচ্ছে। সবচেয়ে বেশি আলোচনায় রয়েছেন পাবনা-১ আসনের সংসদ সদস্য ও সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শামসুল হক টুকু এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৬ আসনের সংসদ সদস্য ও সাবেক মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ক্যাপ্টেন (অব.) এ বি তাজুল ইসলাম। টুকু বর্তমানে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি। আর ক্যাপ্টেন তাজ দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

Comments

comments

More Stories

১ min read
১ min read
১ min read

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!