এপ্রিল ১৮, ২০২৪ ৫:২৯ অপরাহ্ণ || ইউএসবাংলানিউজ২৪.কম

কোনও রাজ্যই এনআরসি মেনে নেবে না: মমতা

১ min read

নাগরিক তালিকার (এনআরসি) বিরোধিতায় আবারও সরব হলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়। জোর গলায় অমিত শাহকে জবাব দিয়েছেন তিনি। এর আগে ঝাড়খণ্ডে প্রচারে গিয়ে অমিত সোমবার বলেছিলেন, ২০২৪ সালে লোকসভা নির্বাচনের আগেই এনআরসি করে অনুপ্রবেশকারীদের তাড়িয়ে দেওয়া হবে।

অপরদিকে মঙ্গলবার মমতা বলেন, এই এনআরসি হল বেআইনি। আসামেও তো এনআরসি মানা হচ্ছে না। কোনও রাজ্যই এই এনআরসি মেনে নেবে না।

এনআরসির বিরুদ্ধে রাজ্য জুড়ে ব্যাপক প্রচারণা চালাচ্ছে তৃণমূল। মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির নির্দেশে সব ব্লকে তৃণমূলের কর্মীরা এনআরসির বিরুদ্ধে নেমেছেন। প্রথম থেকেই মমতা বলে আসছেন, বাংলায় এনআরসি করতে দেওয়া হবে না।

তার মতে, ধর্মের ভিত্তিতে ভাগাভাগি চলবে না। আমরা ভারতবর্ষের নাগরিক। সকলেই এই দেশে থাকব। বিজেপির রাজনীতির স্লোগান যাই হোক না কেন, সরকার ও দলের তরফ থেকে আমরা এর বিরোধিতা করে যাব। বিজেপি
যা বলবে তা মেনে নেব না।

তিনি জোর দিয়ে বলেন, আমরা দেশের নাগরিক। সকলেই ভোট দেয়। একবার নাগরিকত্বের প্রমাণ দেওয়া হয়েছে। কতবার দিতে হবে? আর দেওয়া যাবে না। শরীর থেকে দুটো কিডনি, লিভার বাদ দিয়ে দিলে শরীরটাই তো থাকবে না। শরীরটা ভাগ করে দেবে?

তিন বিধানসভার উপনির্বাচনে তৃণমূল জয়ী হওয়ায় মমতা বলেছিলেন, বিজেপি নেতাদের এত ঔদ্ধত্য ও অহঙ্কার ভাল নয়। এরা সর্বনাশের খেলায় নেমেছে। হিন্দু-মুসলিম ভাগাভাগি করছে। সম্প্রতি উত্তরবঙ্গ সফরে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রী স্থানীয় মানুষদের আশ্বাস দিয়ে বলেন, আপনারা ভয় পাবেন না।

তিনি বলেন, আমার ওপর আস্থা রাখুন, ভরসা রাখুন। বাংলায় এনআরসি হচ্ছে না। অহেতুক আতঙ্কের কোনও কারণ নেই। ওরা রাজনৈতিক স্লোগান দিক, আমরা পাশাপাশি এর বিরুদ্ধে লড়ে যাব।

Comments

comments

More Stories

১ min read
১ min read
১ min read
error: Content is protected !!