জুলাই ১, ২০২২ ২:১০ অপরাহ্ণ || ইউএসবাংলানিউজ২৪.কম

ইউএস বাংলানিউজ, নিউইয়র্ক

অগ্রসর পাঠকের বাংলা অনলাইন

কানাডায় প্রবেশকালে যুক্তরাষ্ট্রের ১৮৬০ শরণার্থী আটক

ডোনাল্ড ট্রাম্প মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হবার শরণার্থী বিরোধী নীতির ফলে যুক্তরাষ্ট্রের অভিবাসীরা ছুটছে কানাডার দিকে।গত ছয় বছরের তুলনায় সর্বোচ্চ শরণার্থীর আশ্রয় নিয়েছে কানাডায় । অবৈধভাবে কানাডায় প্রবেশ করায় সময় গত মার্চে ৮৮৭ জন শরণার্থীকে যুক্তরাষ্ট্র-কানাডার সীমান্ত থেকে আটক করা হয়েছে। যার পরিমাণ গত জানুয়ারি মাসের তুলনায় তিনগুণ বেড়েছে বলে কানাডার  কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে। এ খবর দিয়েছে বার্তা সংস্থা বাংলা প্রেস।

তবে সবমিলিয়ে এ পর্যন্ত ১৮৬০ জনকে আটক করে আশ্রয়কেন্দ্রে রাখা হয়েছে এবং তাদেরকে  আটক করা হয়েছে মার্কিন সীমানা পেরিয়ে যখন তারা অবৈধভাবে কানাডাতে প্রবেশ করছিল এবং তবে এ বিষয়ে কানাডার পরিসংখ্যান বিশেষজ্ঞরা ধারণা করছেন শুষ্ক মৌসুমে শরণার্থীর পরিমাণ আরও বাড়তে পারে।
এর আগে এত সংখ্যক উদ্বাস্তু এবং শরণার্থীর চাপ ছিল না তবে গত ছয় বছরের তুলনায় মার্চে অতীতের সকল রেকর্ড পার করেছে বলে বিশেষজ্ঞরা মন্তব্য করেন  এবং শরণার্থীর ভিড় জমানোর কারণ হিসেবে জানা যায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ট্রাম্পের শরণার্থী বিরোধী প্রচারণার ফলেই এই চাপ । কানাডার নিরাপত্তা বিষয়ক মন্ত্রী রালফ গোদেলি গত বুধবার তার কার্যালয়ে বলেন, অধিকাংশ অভিবাসীরাই যুক্তরাষ্ট্রের অনিয়মিত ছিল এবং তারা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ভিসা প্রার্থী ছিল।
প্রসঙ্গত, আশ্রয়প্রার্থী শরনার্থীদেরকে মধ্যে তিন চতুর্থাংশের মতো আটক করার পর তাদেরকে কুইবেকের আশ্রয়কেন্দ্রে রাখা হয়েছে। এছাড়াও বেশকিছু শরনার্থীদেরকে  চ্যাম্পলিন ও হ্যমিংফোর্ডে রাখা হয়েছে । উল্লেখ্য, কানাডার পুলিশ গত শুক্রবার রাতে ৯ জন আফ্রিকান নাগরিককে আটক করে যারা যুক্তরাষ্ট্রের ড্রাইভিং করত বলে জানা যায়।

আরও পড়ুন

error: Content is protected !!