এপ্রিল ১৩, ২০২৪ ২:১২ পূর্বাহ্ণ || ইউএসবাংলানিউজ২৪.কম

বাইডেনের অভিষেকে হামলার আশঙ্কা

১ min read

অবস্থাটা এমন দাঁড়িয়েছে, মার্কিনিরা এখন তাদের নিরাপত্তাকর্মীদেরও বিশ্বাস করতে পারছে না। নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের অভিষেক অনুষ্ঠানে ভেতর থেকেই হামলা হতে পারে বলে আশঙ্কা করছে ফেডারেল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (এফবিআই)। এ কারণে অনুষ্ঠানে নিরাপত্তা দিতে আসা ন্যাশনাল গার্ডের ২৫ হাজার সদস্যের বিষয়েই তদন্ত করছে দেশটির কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা।

ন্যাশনাল গার্ড ব্যুরোর প্রধান জেনারেল ড্যানিয়েল হোকানসন রোববার সিবিএস নিউজকে বলেন, সিক্রেট সার্ভিসের সঙ্গে সমন্বিতভাবে অনুষ্ঠানে আসন্ন সব কর্মকর্তার বিষয়ে তদন্ত করছে এফবিআই।

যুক্তরাষ্ট্রের রাজধানী ওয়াশিংটন ডিসি থেকে আল জাজিরার সংবাদদাতা শিহাব রাত্তানসি জানিয়েছেন, আগামী বুধবার বাইডেনের অভিষেক সামনে রেখে নিজস্ব পরীক্ষা পদ্ধতিতে ভরসা করতে পারছে না ন্যাশনাল গার্ড বাহিনী। তাদের কোনো সদস্য কোনোভাবে চরমপন্থীদের সঙ্গে জড়িত কি না তা নিশ্চিত করতে অন্য সংস্থাগুলোর সাহায্য নেয়া হচ্ছে।

jagonews24

রাত্তানসি বলেন, ন্যাশনাল গার্ডের নেতৃত্ব থেকে আমাদের বারবার বলা হয়েছে, বাহিনীর সদস্যদের অতীত সংক্রান্ত যেকোনো ধরনের সম্ভাব্য বিপদ, চরমপন্থার সঙ্গে যোগসূত্রের বিষয়ে নিয়মিত পরীক্ষা করা হচ্ছে। সবশেষ এর সঙ্গে যুক্ত হয়েছে এফবিআই।

আল জাজিরার এ সংবাদদাতা বলেন, এফবিআই তাদের নিজস্ব ডাটাবেজ ব্যবহার করে ন্যাশনাল গার্ড সদস্যদের তদন্ত করছে। তাদের নামে কোনো লাল পতাকা রয়েছে কি না তা পরীক্ষা করা হচ্ছে।

বার্তা সংস্থা অ্যাসোসিয়েটেড প্রেসের (এপি) খবর অনুসারে, ক্যাপিটলের দাঙ্গায় মার্কিন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অন্তত ২১ জন বর্তমান ও সাবেক কর্মকর্তা সরাসরি অংশ নিয়েছিলেন বা আশপাশে ছিলেন।

এছাড়া নর্থ ক্যারোলাইনা থেকে একদল বিক্ষোভকারীকে নেতৃত্ব দিয়ে ওয়াশিংটনে নেয়া ক্যাপ্টেন এমিলি রেইনির বিষয়ে তদন্ত শুরু করেছে মার্কিন সেনাবাহিনী। ওই কর্মকর্তা অবশ্য ইতোমধ্যে পদত্যাগ করেছেন।

jagonews24

গত ৬ জানুয়ারি ক্যাপিটল ভবনে ট্রাম্প সমর্থকদের হামলায় এক পুলিশ কর্মকর্তাসহ অন্তত পাঁচজন প্রাণ হারান। এ ধরনের ঘটনা আরও ঘটতে পারে আশঙ্কায় রাজধানীসহ যুক্তরাষ্ট্রের ৫০টি অঙ্গরাজ্যেই বিশেষ সতর্কতা জারি করেছে এফবিআই।

বাইডেনের অভিষেক উপলক্ষে ক্যাপিটল ভবনের চারপাশে সামরিক ‘গ্রিন জোন’ ঘোষণা করা হয়েছে। ট্রাম্পের অভিষেকের চেয়ে বাইডেনের অনুষ্ঠানে আড়াইগুণ বেশি নিরাপত্তা সদস্য মোতায়েন করা হচ্ছে।

অনুষ্ঠানে নিরাপত্তা কার্যক্রম পরিচালনার দায়িত্ব সিক্রেট সার্ভিসের হাতে থাকলেও তাদের সঙ্গে যোগ দিয়েছেন এফবিআই থেকে শুরু করে ন্যাশনাল গার্ড, ওয়াশিংটন মেট্রোপলিটন পুলিশ, ক্যাপিটল পুলিশ, পার্ক পুলিশের কর্মকর্তারাও।

Comments

comments

More Stories

১ min read
১ min read
১ min read

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!